Home / Breaking News / মুরগির বাচ্চা বাঁচাতে দশ টাকার নোট নিয়ে হাসপাতালে শিশু

মুরগির বাচ্চা বাঁচাতে দশ টাকার নোট নিয়ে হাসপাতালে শিশু

শিশু

সংবাদ পরিক্রমা: হাসপাতালে করুণ মুখে দাঁড়িয়ে আছে ছয় বছর বয়সী এক শিশু! তার ডান হাতে দশ টাকার নোট এবং বাঁ হাতে একটি মুরগির বাচ্চা। বুধবার এই ছবিই ভাইরাল হয় সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে।

ভারতের মিজোরাম রাজ্যে এ ঘটনা ঘটে। যা একদম তাক লাগিয়ে দিয়েছে সবাইকে।

কিন্তু এখানেই শেষ নয়। এই শিশুর কীর্তি শুনলে হেসেই লুটোপুটি হবেন আপনি। কেঁদেও ফেলতে পারেন, মানবিক স্পর্শে। অথবা চরম বিস্ময়ের সঙ্গে ভাবতে পারেন, এমনটাও সম্ভব!
জানা যায়, দেশটির সাইরাং অঞ্চলের ডেরিক সি লালচনহিম নামে ওই শিশুটি সাইকেল চালানোর সময় চাপা দেয় সেই মুরগির বাচ্চাকে। প্রতিবেশীর মুরগির বাচ্চাটিকে সাইকেল চাপা দিয়ে অপরাধবোধে অনুতপ্ত শিশুটি তার কাছে যে টাকা ছিল তা হাতে নিয়ে মুরগির বাচ্চাসহ পার্শ্ববর্তী হাসপাতালে ছুটে যায়।

বুধবার ভারতীয় গণমাধ্যমে প্রকাশিত একটি প্রতিবেদনে বলা হয়, শিশুটির এক হাতে ছিল দশ টাকার একটা নোট অন্যহাতে সেই আহত মুরগির বাচ্চা। সেই ছবি এক ফেসবুক ব্যবহারকারী শেয়ার করার পর তা ভাইরাল হয়ে যায়। ইতোমধ্যে প্রায় ১ লাখ মানুষ ছবিটির রিয়েকশন দিয়েছে, এবং প্রায় ১০ হাজার মানুষ কমেন্ট করেছে পোস্টটিতে।

শিশুটির বাবা বলেন, কাঁদতে কাঁদতে ছানাটিকে নিয়ে প্রথমে বাড়িতে ছুটে আসে ও। বলে, মুরগিটাকে হাসপাতালে নিয়ে যেতে। ও তখনও বুঝতে পারেনি, মুরগির ছানাটা মারা গেছে। ও খুব কাঁদছিল। আমরাও সত্যিটা বলতে পারিনি ওকে ও ভাবে কাঁদতে দেখে। তাই ওকে বলি, ও যাতে নিজেই হাসপাতালে নিয়ে যায় ছানাটিকে।

তিনি আরো জানান, যখন মুরগিটি আহত অবস্থায় দেখি, তখন প্রচুর রক্ত দেখা যায়। হাসপাতাল থেকে শেষমেষ ছোট্ট ডেরিক সুস্থ মুরগি নিয়ে বাড়ি ফিরতে পারে না। তবে তার সহানুভূতি এবং অপরাধবোধ সবাইকে একবার হলেও ভাবাচ্ছে।

print

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

sri

শ্রীলঙ্কায় গীর্জায় আবারও বিস্ফোরণ

শ্রীলঙ্কার রাজধানী কলম্বোর একটি গীর্জায় নতুন করে বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। সোমবারের এই বিস্ফোরণের ঘটনায় এখন ...