Home / Breaking News / কানাডায় বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ডলি বেগম ‘ওম্যান অব ডিস্টিঙ্কশন’ অ্যাওয়ার্ড পেলেন

কানাডায় বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ডলি বেগম ‘ওম্যান অব ডিস্টিঙ্কশন’ অ্যাওয়ার্ড পেলেন

৭

সংবাদ পরিক্রমা : কানাডার অন্টারিয়ো প্রোভিন্সিয়াল পার্লামেন্ট সদস্য (Member of the Ontario Legislative Assembly) ডলি বেগম ‘ওম্যান অব ডিস্টিঙ্কশন’ (Woman of Distinction )ক্যাটাগরিতে ‘পেস-আরএমএম উইম্যান অ্যাচিভার্স অ্যাওয়ার্ড ২০১৯’ পেলেন। বাংলাদেশি-কানাডিয়ানদের রাজনৈতিক স্পৃহার সফল অগ্রপথিক হিসেবে কমিউনিটিতে বিশেষ অবদান রাখার জন্য অলাভজনক সংস্থা পেস (প্রগ্রেসিভ অ্যাকশন ফর কমিউনিটি এ্যামপাওয়ারমেন্ট) ও টরন্টো থেকে সম্প্রচারিত শিক্ষামূলক বিনোদন চ্যানেল ‘রেডিও মেট্রো মেইল’ (আরএমএম) প্রতি বছর এ পুরস্কার প্রদান করে। ডলি বেগমই নর্থ আমেরিকায় প্রথম বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত তরুণ রাজনীতিক, যিনি অন্টারিয়ো প্রাদেশিক সংসদে সরাসরি নির্বাচিত একজন সদস্য।

আন্তর্জাতিক নারী দিবসে পেস ও আরএমএম এর প্রতিনিধিরা ডলি বেগমকে গতকাল শনিবার তার অফিসে এই সম্মাননা প্রদানের ঘোষণা দেন। অনুষ্ঠানে ডলি বেগমকে শুভেচ্ছা জানিয়ে রেডিও মেট্রো মেইলের চেয়ারপার্সন নুসরাত জাহান বলেন, “প্রতি বছর কানাডার সামাজিক, রাজনৈতিক ও জাতীয় জীবনে বিশেষ অবদানের জন্য বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত একজন কানাডিয়ান নারীকে আমরা সম্মাননা জানাই। এ বছর ডলি বেগমের এই সম্মাননা প্রাপ্তিতে কানাডায় বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত নারীরা মূলধারার রাজনীতিতে আরও বেশি অবদান রাখতে উৎসাহিত হবেন বলে আমরা আশা করি।”

উইমেন অ্যাচিভার্স পুরস্কার উদ্যোক্তাদের ধন্যবাদ জানিয়ে ডলি বেগম বলেন, “কম্যুনিটির সর্বস্তরের মানুষ ও সংগঠনের ভালোবাসা ও বিশ্বাসের ওপর ভর করেই আমার সমস্ত কাজ, কম্যুনিটির মানুষের ক্ষমতায়নের জন্যে সাধ্যমতো আমি সব কিছুই করতে প্রস্তুত, মানুষের জন্যে, মানুষের পরামর্শেই কাজ করতে চাই। এই সম্মাননা মানুষের ভালোবাসারই আরেক রূপ, আমি আজ আবেগাপ্লুত।”
উপস্থিত উদ্যোক্তারা আন্তর্জাতিক নারী দিবসে তাকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানিয়ে তার আগামী দিনের সকল কর্মকাণ্ডের সাফল্য কামনা করেন। এ সময় পেস এর প্রেসিডেন্ট মুস্তাফা মাহমুদ বিশ্বজুড়ে নারীর ক্ষমতায়নের ওপর গুরুত্ব দিয়ে বলেন, “বুদ্ধিবৃত্তিক সমাজে ভালো বিষয়গুলো আয়ত্ত ও চর্চা করার মাধ্যমে পেস নারীর অগ্রযাত্রায় সাধ্যমতো যে কোনো রকমের সাহায্য করতে প্রস্তুত।”

পেস ও রেডিও মেট্রো মেইল আগামী ৩০ জুন এক বিশেষ অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে ডলি বেগমকে সম্মাননা সার্টিফিকেট ও ক্রেস্ট প্রদান করবে। ২০১৮ সালে এই সম্মাননা পেয়েছিলেন প্ল্যান কানাডার আন্তর্জাতিক কার্যক্রম বিভাগের নেতৃত্ব প্রদানকারী বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত ডাক্তার তানজিনা মির্জা, আর ২০১৭ সালে এই পুরস্কার প্রদান করা হয়েছিল কানাডার প্রাক্তন চিফ টাউন প্ল্যানার ও বিশিষ্ট রাজনৈতিক ব্যাক্তিত্ব অটোয়া’র রাশেদা নাওয়াজ।

print

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

sri

শ্রীলঙ্কায় গীর্জায় আবারও বিস্ফোরণ

শ্রীলঙ্কার রাজধানী কলম্বোর একটি গীর্জায় নতুন করে বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। সোমবারের এই বিস্ফোরণের ঘটনায় এখন ...