Home / Breaking News / অনলাইনে ক্যাসিনো ব্যবসার মূলহোতা সেলিম প্রধানের অফিস থেকে যা যা জব্দ করলো র‍্যাব

অনলাইনে ক্যাসিনো ব্যবসার মূলহোতা সেলিম প্রধানের অফিস থেকে যা যা জব্দ করলো র‍্যাব

সংবাদ পরিক্রমা: অনলাইনে ক্যাসিনো ব্যবসার মূলহোতা সেলিম প্রধানের গুলশান ও বনানীর বাসায় অভিযান শেষে র‍্যাব জানিয়েছেন বিপুল পরিমাণ টাকা, বিদেশি মদ, হরিণের চামড়াসহ একটি বড় অনলাইন সার্ভার উদ্ধার করা হয়েছে। পরে মানি লন্ডারিং, ফরেন কারেন্সি অ্যাক্ট, বন্যপ্রাণী অ্যাক্ট এবং মাদকদ্রব্য মামলায় সেলিম প্রধানকে গ্রেপ্তার করেছে র‌্যাব।

র‍্যাবের গণমাধ্যম শাখার ভারপ্রাপ্ত পরিচালক ও র‍্যাব-১ এর অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল সারোয়ার বিন কাশেম আজ মঙ্গলবার বিকেলে অভিযান শেষে এক স্পট ব্রিফিংয়ে এসব তথ্য জানান।

তিনি বলেন, ‘আমাদের একটি সাইবার মনিটরিং সেল আছে। তার মাধ্যমে আমরা জানতে পারি যে, কিছু অসাধু ব্যবসায়ী অনালাইনের ক্যাসিনো গেমে নিজেদের নিয়োজিত রেখেছে। সেটি দেখতে পেয়ে আমরা অপারেশনের প্ল্যান করি। গতকাল আমরা জানতে পারি এই প্রধান বা মূল ব্যক্তি, যার নাম সেলিম প্রধান তিনি বাংলাদেশ ছেড়ে চলে যাচ্ছিল। এরপর তাকে গ্রেপ্তারের পরে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে। এরপর তার দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতেই গুলশান ও বনানীতে অভিযান চালানো হয়।’

“দুই জায়গায় অভিযান চালিয়ে ৪৮টি বিদেশি মদের বোতল, ২৯ লাখ ৫ হাজার ৫০০ টাকা উদ্ধার করা হয়, ৭ লাখ ৯৮ হাজার টাকা এবং বনানীর অফিস থেকে ২১ লাখ ২০ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়।”

র‍্যাবের এই কর্মকর্তা বলেন, ‘আমরা তার (সেলিম প্রধান) কাছ থেকে ২৩টি দেশের বৈদেশিক মুদ্রা যার মূল্য ৭৭ লাখ ৬৩ হাজার ২৩ টাকা, তার পাসপোর্ট পেয়েছি মোট ১২টি মেয়াদ অতিক্রম করায় সেগুলো জমা হয়েছে। ১৩টি ব্যাংকের চেক বই পাওয়া গেছে ৩২টি। একটি বড় সার্ভার যেটিতে অনলাইনের গেম সংরক্ষণের ব্যবহার করা হতো। এছাড়াও ২টি হরিণের চামড়া উদ্ধার করা হয়েছে।’

সেলিম প্রধানকে গ্রেপ্তার করা প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘কয়েকটি সুনির্দিষ্ট অভিযোগের ভিত্তিতে তার বিরুদ্ধে আমরা গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করছি। প্রথমত মানি লন্ডারিং, দ্বিতীয়ত ফরেন কারেন্সি অ্যাক্ট, বন্যপ্রাণী অ্যাক্ট এবং মাদকদ্রব্য মামলায় আমরা তাকে গ্রেপ্তার করছি।’

আজ মঙ্গলবার দুপুরে বনানীর ২ নম্বর সড়কের ২২ নম্বর বাসায় এই অভিযান শুরু করেছিলো র‍্যাব। এর আগে গুলশান-২ এর ১১/এ রোডে সেলিম প্রধানের বাসা থেকে বিপুল পরিমাণ দেশি-বিদেশি মদ, নগদ টাকা ও বিদেশি মুদ্রা জব্দ করে র‍্যাব।

সোমবার রাত সাড়ে ৯টায় র‌্যাবের একটি টিম গুলশান-২ এর ১১/এ রোডের ৯৯ নম্বর ভবনে তার অফিসটি ঘিরে রাখে। এর কিছুক্ষণ পর তারা ভবনটিতে প্রবেশ করে অভিযান শুরু করে।

এর আগে সোমবার দুপুরে থাই এয়ারওয়েজের টিজি-৩২২ নম্বর ফ্লাইটটি ছাড়ার আগ মুহূর্তে সেলিম প্রধানকে গ্রেপ্তার করা হয়। তিনি বাংলাদেশে অনলাইনে ক্যাসিনো ব্যবসার মূলহোতা। সূত্র: আমাদের সময় ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

*

x

Check Also

মেননের বিরুদ্ধে অভিযোগ সত্য প্রমাণিত হলে, সেটি অত্যন্ত দুঃখজনক হবে : তথ্যমন্ত্রী

সংবাদ পরিক্রমা: ক্যাসিনো থেকে চাঁদা নেয়ার অভিযোগের প্রমাণ পাওয়া গেলে বাংলাদেশের ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ ...